দেবীদ্বারে এক গৃহবধূর লাথির আঘাতে অপর গৃহবধূর মৃত্যু

Comillaকুমিল্লার দেবীদ্বারে ছাগলের শিম গাছ খাওয়া নিয়ে দুই পরিবারের বিরোধের জের ধরে ছাগলের মালিক শ্যামলা বিবির(৪৫) লাথির আঘাতে শিম গাছের মালিক জাহানারা বেগম(৫০) নামে এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে। এই ঘটনার পর ঘাতক শ্যামলা বিবি পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টাকালে পুলিশ তাকে আটক করে।
স্থানীয়রা জানান, আজ শুক্রবার সকাল ১১টায় দেবীদ্বার পৌর এলাকার পোনরা মেলা সংলগ্ন বারেরা গ্রামের মজিব পেষ্কারের বাড়ির ভাড়াটিয়া রিকশাচালক শাহজানের স্ত্রী জাহানারা বেগমের শিম গাছ খেয়ে ফেলে একই গ্রামের পাশ্ববর্তী বাড়ির দিনমজুর বজলু মিয়ার স্ত্রী শ্যামলা বিবির ছাগল। এ নিয়ে দুই গৃহবধূ শ্যামলা ও জাহানারার মধ্যে চলে বাগযুদ্ধ, গাল-মন্দ ও এক পর্যায়ে হাতা-হাতি, চুল টানাটানি। এ সময় শ্যামলা বিবি জাহানারা বেগমকে লাথি মারলে তলপেটে আঘাতপ্রাপ্ত হয়ে ঘটনাস্থলেই জাহানারা অচেতন হয়ে পড়েন। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে দেবীদ্বার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এই সংবাদ পেয়ে দেবীদ্বার থানার এসআই জাকির হোসেন ঘটনাস্থল থেকে নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করে। অপরদিকে এই ঘটনার পর ঘাতক শ্যামলা বিবি পালিয়ে যাওয়ার সময় কুমিল্লা-সিলেট আঞ্চলিক মহাসড়কের ভিড়াল্লা বাসষ্ট্যান্ড এলাকা থেকে পুলিশ শ্যামলা বিবিকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে।
এ ব্যাপারে দেবীদ্বার থানার ওসি মো. মিজানুর রহমান জানান, ছাগল কর্তৃক ছইগাছ খাওয়া নিয়ে বিরোধের জের ধরে দুই গৃহবধূর ঝগড়ার এক পর্যায়ে ছাগলের মালিক শ্যামলা বিবির লাথির আঘাতে ছইগাছের মালিক জাহানারা বেগমের মৃত্যু হয়। জাহানারা বেগমের মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য কুমেক হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় আটক গৃহবধূর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email

Related posts

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
Send this to a friend